শিরোনাম

ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন

আখাউড়ার ৫ ইউনিয়নে নৌকা নেই, মাঠে আছে যুবলীগ

স্টাফ রিপোর্টার | রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১ | পড়া হয়েছে 279 বার

আখাউড়ার ৫ ইউনিয়নে নৌকা নেই, মাঠে আছে যুবলীগ

আগামী ২৬ ডিসেম্বর চতুর্থধাপে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া উপজেলার ৫টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন।

মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন গত বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) পাঁচটি ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান, সাধারণ ওয়ার্ডের সদস্য ও সংরক্ষিত মহিলা ওয়ার্ডের সদস্য পদে ২৭৮ জন প্রার্থী তাদের মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। এর মধ্যে চেয়ারম্যান পদে ৩৮ জন, সংরক্ষিত মহিলা আসনে ৫০ জন ও সাধারণ সদস্য পদে ১৯১ জন প্রার্থী তাদের মনোনয়নপত্র দাখিল করেন।
প্রার্থীরা নির্বাচনের দায়িত্বপ্রাপ্ত স্ব-স্ব রিটার্নিং অফিসারদের কাছে তাদের মনোনয়নপত্র দাখিল করেন।
উপজেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, উত্তর ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান পদে ৫জন, সংরক্ষিত মহিলা আসনে ৭ জন ও সাধারণ সদস্য পদে ৩২ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেন।

সদর দক্ষিণ ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান পদে ৩জন, সংরক্ষিত মহিলা আসনে ১০ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৩৭ জন, মোগড়া ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান পদে ৭জন. সংরক্ষিত মহিলা আসনে ১৪ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৪০ জন, মনিয়ন্দ ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান পদে ৭জন, সংরক্ষিত মহিলা আসনে ৬জন, সাধারণ সদস্য পদে ৩৬ জন ও ধরখার ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান পদে ১৬ জন, সংরক্ষিত মহিলা আসনে ১৩ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৪৫ জন প্রার্থী তাদের মনোনয়নপত্র দাখিল করেন।
এদিকে দলীয় প্রতীক নৌকা ছাড়াই ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ভোটের সিদ্ধান্ত গ্রহন করেছেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৪-(কসবা-আখাউড়া) আসনের সংসদ সদস্য ও আইনমন্ত্রী অ্যাডভোকেট আনিসুল হক।

জনগনের ইচ্ছার প্রতিফলন ঘটাতে এমন সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে তিনি নিজ সংসদীয় এলাকা কসবাতেও দলীয় নৌকা প্রতীক দেয়া হবে না বলে মন্ত্রী জানিয়ে দেন।

এদিকে নৌকা প্রতীক ছাড়া ভোট হচ্ছে বলে নির্বাচন বেশ জমে উঠেছে। সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থীরা নিজ গ্রাম, এলাকা ও গোষ্ঠীকে ভোট ব্যাংক ধরে ভোটের মাঠে নামার প্রস্তুতি নিচ্ছেন। নির্বাচনী এলাকার পাড়া-মহল্লায় ইতিমধ্যেই ছোটখাট সভা-সমাবেশ করছেন তারা।

তবে মন্ত্রীর সিদ্ধান্তের পরও প্রার্থীদের পক্ষে মাঠে নেমেছে উপজেলা যুবলীগ। ইতিমধ্যেই যুবলীগের পক্ষ থেকে উপজেলার দক্ষিণ ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান জালাল উদ্দিনকে সমর্থন দিয়েছে যুবলীগ। নির্দেশনা দেয়া হয়েছে ওই প্রার্থীর পক্ষে যেন দলের সবাই কাজ করেন। ৫ ইউনিয়নের বাকি ৪টিতেও তারা নিজেদের পছন্দের প্রার্থী দেয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে জানা গেছে।

যুবলীগের নেতারা বলেন, সমর্থন দেয়া জালাল উদ্দিন উপজেলা যুবলীগের সদস্য। প্রতীক না থাকলেও একজনকে সাপোর্ট দেয়া যাবে না এমন কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। দলের নেতাদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, প্রত্যেক ইউনিয়নেই একজনকে সমর্থন দেয়া হবে।

এদিকে আওয়ামী লীগের নেতারা মনে করছেন, দলীয় প্রতীক বরাদ্দ না করে ‘ওপেন নির্বাচন’ হবে বলে এখন কাউকে সমর্থন দেওয়া হলে বিষয়টি হবে সাংঘর্ষিক। যুবলীগের পক্ষ থেকে একজনকে সমর্থনের বিষয়টি তারা জানতে পেরেছেন।
খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, দক্ষিণ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থী মোঃ জালাল উদ্দিনের পক্ষে গত সোমবার রাতে এক সভার আয়োজন করা হয়। ওই সভায় উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক মোঃ আতাউর রহমান নাজিম, যুগ্ম আহবায়ক মোঃ আবদুল মমিন বাবুল, পৌর যুবলীগের সভাপতি মোঃ মনির খানসহ যুবলীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। ওই সভাতেই জালাল উদ্দিনকে যুবলীগের পক্ষ থেকে একক সমর্থন দেওয়া হয়।

এ ব্যাপারে উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক আবদুল মমিন বাবুল বলেন, জালাল উদ্দিন উপজেলা যুবলীগের একজন সক্রিয় সদস্য। যেহেতু সে আমাদের সংগঠনের সদস্য সেহেতু তাকে সমর্থন দেয়া যেতেই পারে। আর যেহেতু নৌকা প্রতীক নাই সেহেতু আমার কোনো ভাই যদি ভোটে দাঁড়ায় তাহলে তাঁকে সমর্থন দেয়া দোষের কিছু হবে না। সেই চিন্তা থেকেই আমরা সব কয়টি ইউনিয়নে একজনকে সমর্থন দেয়ার বিষয়টি ভাবছি। বিষয়টি সাংঘর্ষিক হবে না বলেও তিনি মনে করেন।

এ ব্যাপারে উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক আতাউর রহমান নাজিম বলেন, ‘জালাল উদ্দিনকে যুবলীগ থেকে সমর্থন দেওয়ার বিষয়ে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়। তবে এলাকার মানুষ নিজ থেকেই তাকে সমর্থন দিয়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় একাধিক সূত্র জানায়, নৌকা প্রতীক পাওয়ার ক্ষেত্রে অনেকটাই এগিয়ে ছিলেন বর্তমান চেয়ারম্যান মোঃ জালাল উদ্দিন। বয়সে তরুণ ও দায়িত্বে থাকাবস্থায় তেমন কোনো অনিয়ম দুর্নীতিতে না জড়ানোর কারনে দলসহ এলাকায়ও তার একটা গ্রহন যোগ্যতা রয়েছে। যে কারণে যুবলীগের এমন সিদ্ধান্ত দোষের কিছু না। তবে নৌকা প্রতীক না থাকার পরও দলীয় এই সমর্থন নিয়ে সমালোচনা হবে। দল থেকে একজনকে সমর্থনের বিষয়টি প্রতীক না থাকার সিদ্ধান্তের সাথে সাংঘর্ষিক বলে মনে করছেন অনেকে। এতে দলের মধ্যে বিভেদের আশঙ্কাও করা হচ্ছে।

এ ব্যাপারে উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক মোঃ জয়নাল আবেদীন বলেন, ‘বিষয়টি নিয়ে যুবলীগের কেউ আমাদের সাথে পরামর্শ করেনি। যেহেতু নৌকা প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হয়নি সেহেতু কাউকে দল থেকে সমর্থন দেওয়ার বিষয়টি ঠিক হবে না। আমরা চিন্তা করছি এ বিষয়ে কিভাবে কি করা যায়।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১